ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন

১০টি জনপ্রিয় অ্যাপ ও ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন । দেখুন বিস্তারিত

১০টি জনপ্রিয় অ্যাপ ও ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন

 

ভারত সম্প্রতি চীনের ৫৯টি অ্যাপ ব্লক করেছে। তবে চীনে আন্তর্জাতিক ওয়েবসাইট এবং অ্যাপসের উপর নিষেধাজ্ঞা নতুন নয়। দেশটি অত্যন্ত কঠোর ইন্টারনেট সেন্সরশিপ অনুসরণ করে, যা চীনের গ্রেট ফায়ারওয়াল নামে পরিচিত, যা এক দশকেরও বেশি সময় ধরে বিদ্যমান। চীনে ইন্টারনেট হচ্ছে এমন একটি বিশ্ব, যেখানে সরকার বিষয়বস্তু পর্যবেক্ষণ করে এবং শব্দটির সবচেয়ে পপুয়াল ওয়েবসাইট এবং অ্যাপস সহজে পাওয়া যায় না। যদিও চীন কখনো ইন্টারনেটে তার আঁটসাঁট গ্রিপ সম্পর্কে বিস্তারিত প্রকাশ করেনি এবং স্বীকার করেনি, এই নীতির মধ্যে রয়েছে কিছু আইপি ঠিকানা ব্লক করা, নির্দিষ্ট ইউআরএল এবং কীওয়ার্ড ফিল্টার করা। এখানে কিছু বড় ওয়েবসাইট এবং অ্যাপ আছে যা চীনে ব্লক করা হয়েছে। তাহলে জেনে নিন যে ১০টি জনপ্রিয় অ্যাপ ও ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন।

ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন
ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন

১. গুগল | ওয়েবসাইট ব্লক করেছে চীন

হ্যাঁ, আপনি চীনে গুগল করতে পারবেন না। বিশ্বের সবচেয়ে জনপ্রিয় সার্চ ইঞ্জিন দেশে অবরুদ্ধ। বাইডু চীনে গুগলের প্রতিদ্বন্দ্বী।

২. ফেসবুক

বিশ্বের এক নম্বর সামাজিক নেটওয়ার্কও চীনে প্রবেশযোগ্য নয়। উইচ্যাট চীনের বৃহত্তম সামাজিক মিডিয়া প্লাটফর্ম।

৩. টুইটার

জনপ্রিয় মাইক্রো ব্লগিং ওয়েবসাইট টুইটারও চীনে নিষিদ্ধ। উইবো চীনে টুইটারের সমতুল্য।

৪. ইউটিউব

গুগলের মালিকানাধীন ভিডিও প্ল্যাটফর্ম ইউটিউবও অবরুদ্ধ। চীনের ইউটিউব প্রতিদ্বন্দ্বীরা হলেন ইউকিউ ডট কম, আলিবাবার সহায়ক সংস্থা এবং টেনসেন্ট ভিডিও।

৫. ইন্সটাগ্রাম

এর মূল কোম্পানি ফেসবুকের মত, ফটো শেয়ারিং প্লাটফর্ম, ইনস্টাগ্রামও চীনে ব্লক করা হয়েছে। টেনসেন্ট মালিকানাধীন উইচ্যাট একটি মিশ্র ফেসবুক, হোয়াটসঅ্যাপ এবং ইনস্টাগ্রাম বলা হয়।

৬. জিমেল

বিশ্বের সর্বাধিক জনপ্রিয় ইমেল পরিষেবা জিমেইল চীনে অবরুদ্ধ। এটি দেশের কোথাও থেকে অ্যাক্সেস করা যায় না।

৭. হোয়াটসঅ্যাপ

বিশ্বের এক নম্বর ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং অ্যাপ হোয়াটসঅ্যাপ চীনে ব্লক করা হয়েছে। টেনসেন্ট মালিকানাধীন ইনস্ট্যান্ট মেসেজিং অ্যাপ কিউকিউ দেশে বেশ জনপ্রিয়।

৮. গুগল ম্যাপ

সকল জনপ্রিয় গুগল পরিষেবার মত, গুগল ম্যাপও চীনে নিষিদ্ধ। বাইডু অনুসন্ধান ইঞ্জিন দ্বারা নির্মিত মানচিত্রটি চীন মধ্যে বহুল ব্যবহৃত জনপ্রিয় মানচিত্র হিসাবে বিবেচিত হয়।

৯. কোরা

প্রশ্ন এবং উত্তর সাইট এবং অ্যাপ্লিকেশন চীনে অ্যাক্সেসযোগ্য নয়।  চীনে এই ধরনের সাইট ও অ্যাপ পাওয়া যায় না। চীনে এর অন্যতম প্রতিদ্বন্দ্বী হলেন ঝিহু।

১০. টিনডার

ডেটিং অ্যাপটি চীনে অ্যাক্সেস করা যায় না। চীনের সর্বাধিক জনপ্রিয় ডেটিং অ্যাপগুলির একটি হ’ল মোমো।

আমাকে অনুসরণ করতে পারেন ফেসবুক, ইন্সটাগ্রামটুইটারে

Spread the love

Leave a Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *